ডাচ্-বাংলা-আইবিএলসহ ৫ ব্যাংকে লেনদেন সীমিত করা হয়েছে

দেশের ব্যাংকগুলোতে হ্যাকারদের হামলার আশঙ্কা প্রকাশ করে বেশ কয়েকদিন হল সতর্কতা জারি করা হয়েছে। এর মধ্যে তিনটি ইন্টারনেট প্রতিষ্ঠানে ম্যালওয়্যারের সন্ধান পাওয়া গেছে। এমন পরিস্থিতিতে লেনদেন সীমিত করেছে পাঁচটি ব্যাংক।

ব্যাংকগুলো হল- ব্যাংকগুলো হলো ডাচ্-বাংলা ব্যাংক লিমিটেড, ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড, সিটি ব্যাংক, ব্র্যাক ব্যাংক ও ট্রাস্ট ব্যাংক।

হ্যাটিং এড়াতে সতর্কতার অংশ হিসেবে ব্যাংক পাঁচটি দিনের কিছু নির্দিষ্ট সময়ে এটিএম বুথে লেনদেন ও অনলাইন ব্যাংকিং বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে রাত ১১টার পর থেকে সকাল ৭টা পর্যন্ত এটিএম বুথে লেনদেন বন্ধ রাখা, রাত ৮টার পর সুইফট ও বিইএফটিএনের লেনদেন বন্ধ রাখা, এটিএম থেকে ইএমভি লেনদেন বন্ধ রাখা, এনপিএসবি চ্যানেল বন্ধ রাখা। পাশাপাশি ভিসা, অ্যামেক্স, মাস্টারকার্ড ও চায়না ইউনিয়ন পের লেনদেনও বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

এর আগে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের পক্ষ থেকে হ্যাকিংয়ের মাধ্যমে অর্থ চুরি হতে পারে এমন আশঙ্কায় সম্প্রতি দেশের ব্যাংকগুলোকে সতর্ক করা হয়।

এবিষয়ে সিটি ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মাসরুর আরেফিন গণমাধ্যমকে বলেন, বৈশ্বিক সতর্কতা ও বাংলাদেশের নির্দেশনা অনুযায়ী এসব ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। গ্রাহকের অর্থের নিরাপত্তা দিতে আমরা সর্বোচ্চ সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নিচ্ছি। দেশে ক্রেডিট কার্ডের গ্রাহক সংখ্যা সবচেয়ে বেশি সিটি ব্যাংকের। কার্ডের লেনদেন নিরাপদ করতে আমাদের এটিএমে অন্য ব্যাংকের কার্ড গ্রহণ করা হচ্ছে না।

এদিকে দেশের তিনটি ইন্টারনেট প্রোটোকলে (আইপি) ম্যালওয়্যার ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। ‘বিগল বয়েজ’ নামে বৈশ্বিক এক হ্যাকার গ্রুপ এই সাইবার হামলার চেষ্টা করেছে। বাংলাদেশ সরকারের কম্পিউটার ইনসিডেন্ড রেসপন্স টিম (সার্ট) এ অস্তিত্ব শনাক্ত করেছে।

ব্যাংক থেকে অর্থ আ’ত্মসাৎ করাই হা”মলাকারীদের মূল লক্ষ্য। এ কারণে দেশের ব্যাংকখাতগুলো আতঙ্কে রয়েছে।

জানা গেছে, অর্থ লুটের জন্য বিশ্বের বিভিন্ন দেশের ব্যাংকে হামলার চেষ্টা চালাচ্ছে হ্যাকার গ্রুপটি। বাংলাদেশেও গ্রুপটির হামলা চেষ্টার বিষয়ে গত ২৭ আগস্ট সতর্কবার্তা জারি করে বাংলাদেশ ব্যাংক। যুক্তরাষ্ট্রের একাধিক গোয়েন্দা প্রতিবেদনের ভিত্তিতে ওই সতর্কবার্তা জারি করা হয়েছিল। বাংলাদেশ ব্যাংকের সতর্কতা জারির পর ব্যাংকগুলো সাইবার হামলা ঠেকাতে নানা ব্যবস্থা নিয়েছে। পাশাপাশি অনলাইন ও এটিএম (অটোমেটেড টেলার মেশিন) সেবা সীমিত করেছে।

এ বিষয়ে সার্টের প্রকল্প পরিচালক তারেক এম বরকতউল্লাহ গণমাধ্যমকে বলেন, ‘আমরা কাজ করছি। বাংলাদেশে তিনটি ইন্টারনেট সেবাদাতা প্রতিষ্ঠানের নেটওয়ার্কে ‘বিগল বয়েজ’ হ্যাকার গ্রুপের ম্যালওয়্যার পাওয়া গেছে। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনকে (বিটিআরসি) বলা হয়েছে।’